Page Nav

HIDE

Grid Style

GRID_STYLE

Post/Page

Popular Posts

Breaking News:

latest

মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির প্রাক্তন সভাপতি বর্তমানে নারী ও শিশু সমাজ কল্যান কর্মাধ্যক্ষ শুভ্রা মিশ্র প্রয়াত !



পূর্বমেদিনীপুর.ইন : চলে গেলেন সবার নয়নের মনি শুভ্রা মিশ্র। শনিবার রাত্রি ১০.১৭টা নাগাদ তমলুকের একটি বেসরকারী নার্সিং হোমে তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে পরিবার সূত্রে জানা গেছে। তিনি বর্তমানে পূর্ব মেদিনীপুরের মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির নারী ও শিশু সমাজ কল্যান দপ্তরের কর্মাধ্যক্ষা ছিলেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬১ বছর।

তাঁর মৃত্যুর খবর পেয়েই তমলুকে ছুটে যান সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী। এছাড়াও শুভ্রা মিশ্র অসুস্থ থাকা কালীন প্রতিনিয়ত তাঁর খোঁজ নিয়েছেন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। তিনিও "শুভ্রাদি'র" মৃত্যুর খবরে গভীর ভাবে মর্মাহত বলে জানিয়েছেন।

আগামী কাল রবিবার তাঁর মরদেহ তমলুক থেকে মহিষাদলে নিয়ে আসা হবে। এরপর পঞ্চায়েত সমিতির ভবনের সামনে তাঁকে শ্রদ্ধা জানানো হবে। সেখান থেকে শোভাযাত্রা সহকারে তাঁর দেহ বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হবে বলে জানা গেছে।



শুভ্রা মিশ্র মহিষাদল তথা পূর্ব মেদিনীপুর জেলার এক অত্যন্ত পরিচিত রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ছিলেন। সেই বাম জমানায় ১৯৯৩ সাল থেকে তিনি ডানপন্থী রাজনীতিতে যুক্ত হন। এবং তখন থেকেই লাগাতার নির্বাচনে জয়লাভ করে এসেছেন।



প্রথমে তিনি কংগ্রেস দলের তরফে মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির অমৃতবেড়িয়া এলাকা থেকে জয়ী হন। এরপর তিনি প্রতি ৫ বছর অন্তর নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়লাভ করে এসেছেন। ১৯৯৩, ১৯৯৮, ২০০৩, ২০০৮ এবং ২০১৮ নির্বাচনে তিনি পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য নির্বাচিত হন। মাঝে ২০১৩ সালে তিনি জেলা পরিষদে প্রার্থী হয়ে জয়লাভ করেছিলেন। আর ২০০৮ থেকে ২০১৩ পর্যন্ত তিনি মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি হিসেবেও দায়িত্বভার সামলেছেন।



এহেন দাপুটে নেত্রী আচমকাই গত ডিসেম্বরে অসুস্থতা বোধ করেন। নানান পরীক্ষা নিরীক্ষার পর তাঁর ক্যানসার ধরা পড়ে গত ১২ ডিসেম্বর। তখন থেকেই তাঁর চিকিৎসা চলছিল। শুভ্রা মিশ্রের সুস্থতার কামনায় মহিষাদল সহ জেলার আপামর রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব সহ তাঁর গুনগ্রাহীরা প্রার্থনা করে এসেছেন।

তবে গত কয়েকদিন তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাঁকে তমলুকের একটি বেসরকারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সেখানেই আজ ইহলোকের মায়া ত্যাগ করে পরলোকে গমন করেছেন তিনি।